শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ১০:২৪ অপরাহ্ন


গোলাপগঞ্জের সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কেই ঝরেছে ১০ তাজা প্রাণ

গোলাপগঞ্জের সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কেই ঝরেছে ১০ তাজা প্রাণ


শেয়ার বোতাম এখানে

জাহিদ উদ্দিন:

ক্যালেন্ডারের পাতা থেকে দেখতে দেখতে চলে গেলো একটি বছর। গেলো বছরটিতে গোলাপগঞ্জে ঘটে গেছে নানা ঘটনা, দুর্ঘটনা। পূর্ব সিলেটের সাথে যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম হচ্ছে সিলেট-জকিগঞ্জ সড়ক।২০২০ সালে এই সড়কটি যাত্রীদের কাছে মৃত্যুকূপে পরিণত হয়েছে।

২০২০ সালে জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের গোলাপগঞ্জ উপজেলার অংশে সড়ক দুর্ঘটনায় স্কুল শিক্ষার্থী, শিশু সহ মোট ১০জনের প্রাণহানি ঘটেছে।

জানা যায়, সিলেট জকিগঞ্জ রোডের মূলত গোলাপগঞ্জ উপজেলার পাঁচমাইল এলাকা থেকে-রানাপিং বাজার পর্যন্ত কোন না কোন এলাকায় দুর্ঘটনা ঘটে সবচেয়ে বেশী। উপজেলার এ এলাকার ভিতরে এ বছরের আগস্ট মাসে ও ডিসেম্বর মাসে বড় ধরনের দুটি সড়ম দুর্ঘটনা ঘটেছে, যার ক্ষত এখনো মন থেকে মুছে যায়নি উপজেলাবাসীর।

২০২০ সালের শুরুর দিকে উপজেলায় কোন সড়ক দুর্ঘটনা না ঘটলেও বছরের আগস্ট মাসের শেষ দিকে
২৯ তারিখে সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের উপজেলার সদর ইউনিয়নের চৌঘরি ওয়াসিমা কমিউনিটি সেন্টার সংলগ্ন স্থানে বড়লেখাগামী (সিলেট-গ ১১-০০৩৫) একটি বাসের সঙ্গে গোলাপগঞ্জের রানাপিং বাজার থেকে সিলেটের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হলে একটি সিএনজি অটোরিকশার (সিলেট-থ ১১-৪১৫৩) মুখোমুখি সংঘর্ষ ঘটে। সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই অটোরিকশার চালকসহ ৩ জন ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২ জনসহ ৫ জন মারা যান।

এ ঘটনায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের ফাজিলপুর গ্রামের মৃত আব্দুল করিমের ছেলে অটোরিকশা চালক বাহার উদ্দিন (৪০), ফুলবাড়ি ইউনিয়নের হাজীপুর লরিফর গ্রামের মৃত আজমল আলীর ছেলে লাল মিয়া (২৭), তজম্মুল আলীর ছেলে জাকারিয়া আহমদ (৩০),কানাইঘাট উপজেলার রাজাগঞ্জ ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য মৃত আব্দুল জলিলের ছেলে বাহাউদ্দীন (৫০) ও একই ইউনিয়নের বীরদল মাঝপাড়া গ্রামের প্রবাসী আব্দুল আউয়ালের ছেলে মাহফুজ আহমদ (১৭) নিহত হন।

এ বছরের সেপ্টেম্বর মাসে বড় কোন সড়ক দুর্ঘটনা না ঘটলে অক্টোবর মাসের ২৭ তারিখ রাত পৌনে ৮টার দিকে সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের গোলাপগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়ন কমপ্লেক্সের সামনে
মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় প্রাণ যায় নুসরাত জাহান রাহিন (১৩) নামের এক স্কুল ছাত্রীর।

নিহত নুসরাত জাহান জকিগঞ্জ মহিদপুর গ্রামের আলবাব হোসেনের কন্যা ও মৌলভী ছাইর আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী।

সেই দিন সদর ইউনিয়ন কমপ্লেক্সের সামনে একটি মটরসাইকেলের পিছনে আরেকটি মোটরসাইকেলের ধাক্কা দিলে মোটরসাইকেল থেকে পড়ে গুরুতর আহত হয় রাহিন। তাকে দ্রুত উদ্ধার করে ওসমানী হাসপাতালে নেওয়ার পর সেখানেই তার মৃত্যু হয়।

সড়ক দুর্ঘটনায় সড়কের ৫জনের রক্তের দাগ শুকানোর আগেই বছরের একেবারে শেষ দিকে ৩০ ডিসেম্বর সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের গোলাপগঞ্জের হেতিমগঞ্জ পশ্চিম বাজার এলাকার মোল্লাগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সংলগ্ন স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় শিশু সহ ৪জনের প্রাণহানি ঘটে।

ওইদিন কুয়াশাচ্ছন্ন ভোরে সিমেন্ট বোঝাই ট্রাকের পেছনে ধাক্কা দেয় যাত্রীবাহী মাইক্রোবাস। এতে মাইক্রোবাসের সিলিন্ডার বিস্ফোরিত হলে আগুনে পুড়ে বিয়ানীবাজার উপজেলার চারখাই ইউনিয়নের বারইগ্রামের মৃত কুনু মিয়ার পুত্র রাজন আহমদ (২৭) , নোহা গাড়ি চালক একই গ্রামের আব্দুল জলিলের পুত্র সুনাম আহমদ (২৬), কানাইঘাট উপজেলার তালবাড়ি পুর্বকোনা গ্রামের মুক্তার হোসেনের ছেলে মারজান আহমদ (২৫) ঘটনাস্থলেই মারা যান। এছাড়াও ঘটনাস্থলের পাশের কলনিতে থাকা শিশু গোলাপগঞ্জ উপজেলার ফুলবাড়ি ইউনিয়নের রফিপুর গ্রামের মঞ্জু মিয়ার হাসান আহমদ ( ৮) এর উপর সিলিন্ডারের একটি টুকরো পড়লে এই শিশুটিও হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যায়। সেই দিন উপজেলার মানুষ ঘুম থেকে উঠেই এমন সংবাদে আঁতকে উঠেছিল।


শেয়ার বোতাম এখানে





LoveYouZannath
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin