বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:১০ অপরাহ্ন


নগরীতে মাদ্রাসাছাত্রী ‘ধর্ষণ’ মামলায় গ্রেপ্তার ২

নগরীতে মাদ্রাসাছাত্রী ‘ধর্ষণ’ মামলায় গ্রেপ্তার ২


শেয়ার বোতাম এখানে

শুভ প্রতিদিন ডেস্ক:

সিলেট নগরীর আখালিয়া এলাকায় চতুর্থ শ্রেণীর এক মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে হওয়া মামলায় দু’জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-৯। বুধবার (৭ অক্টোবর) সকাল ১১টায় তাদের নগরীর আখালিয়াস্থ বড়টিলা এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে র‍্যাবের একটি সূত্র নিশ্চিত করেছে।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, আখালিয়া এলাকার বড়বাড়ি সি ব্লকের জালালিয়া ১২ নং বাসার মৃত মফিজুল ইসলামের ছেলে রুম্মান মিয়া এবং সুনামগঞ্জ থানাধীন তেগরিয়া গ্রামের সোহেল মিয়ার ছেলে জহিরুল ইসলাম জনি। বর্তমানে জনি আখালিয়া বড়বাড়ির বন্ধন ডি/১৮ শহীদ মিয়ার কলোনিতে বসবাস করে আসছে।এদিকে বিষয়টি নিশ্চিত করে র‍্যাবের সূত্রটি জানায়, গ্রেপ্তারকৃতদের সিলেট মহানগর পুলিশের জালালাবাদ থানায় হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে।

এ ব্যাপারে জালালাবাদ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অকিল উদ্দিন সিলেটটুডে টোয়েন্টিফোকে জানান, ধর্ষণের মামলায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে শুনেছি। এখনও তাদেরকে থানায় হস্তান্তর করা হয়নি।

এর আগে গত শনিবার (৩ অক্টোবর) সিলেটের জালালাবাদ থানায় চতুর্থ শ্রেণীর এক মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে রুম্মান মিয়াকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন ওই ছাত্রীর বাবা।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, নির্যাতিতা মাদ্রাসাছাত্রী গত ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে তার ভাইয়ের বন্ধু জনির স্ত্রী অসুস্থ শুনে তাকে দেখতে যায়। রাত ১২টার দিকে আখালিয়ার বড়টিলা এলাকার বাসিন্দা রোমান আহমদ (২৬) জনির বাড়ির সামনে এসে তাকে ডাকাডাকি শুরু করে। তখন সে বাইরে আসতে না চাইলেও জনির কথায় সে রোমানের সামনে যায়। তখন রোমান মাদ্রাসাছাত্রীর মুখ বেঁধে স্থানীয় শহীদ মিয়ার কলোনির একটি কক্ষে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে তাকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি করা হয়।


শেয়ার বোতাম এখানে





LoveYouZannath
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin