বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১১:২৭ অপরাহ্ন


প্রধানমন্ত্রীকে আল্লাহ শতবছর বাঁচিয়ে রাখুক : ঘর পাওয়ার পর প্রতিবন্ধি হেলনা

প্রধানমন্ত্রীকে আল্লাহ শতবছর বাঁচিয়ে রাখুক : ঘর পাওয়ার পর প্রতিবন্ধি হেলনা


শেয়ার বোতাম এখানে

নবীন সোহেল:: কোনদিনও ভাবিনি নিজের জায়গা হবে আর সেই জায়গার উপর নিজের পাকা ঘর হবে। পরের বাড়িতে থাকা আর নিজের ঘরে থাকার মধ্যে যে কত পার্থক্য, পরের বাড়িতে না থাকলে কেউ সেটা বুঝবে না। এখন আমাদের নিজের নামে জমিসহ পাকা ঘর দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী, কত যে খুশি হয়েছি তা বুঝাতে পারবো না। প্রধানমন্ত্রীকে আল্লাহ শতবছর বাচিঁয়ে রাখুক।

প্রধানমন্ত্রীর উপহার জমিসহ ঘর পেয়ে খুশিতে চোখের পানি মুছে এমন কথা বললেন সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের রায়খালীর বাসিন্দা প্রতিবন্ধি হেলনা বেগম (৪৫)। তিনি প্রতিবন্ধি স্বামী আর দুই মেয়ে নিয়ে ২৫ বছর যাবৎ পরের বাড়ীতে আশ্রয় নিয়ে বসবাস করে আসছিলেন।

হেলনার মতো মিরেচরের মখলিছুর রহমান (৬৫) ও সুনামগঞ্জের আব্দুর রাজ্জাকসহ ঘর পাওয়া অনেকের চোখে পানি দেখা যায়। আর সেটা আনন্দের কান্না। রোববার সকালে উপজেলায় ৬৫টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার নান্দনিক ঘর উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের প্রত্যেককেই বুঝিয়ে দেওয়া হয়।

‘আশ্রয়ণের অধিকার, শেখ হাসিনার উপহার’ এই স্লোগানের আলোকে মুজিববর্ষে রোববার সারাদেশের ন্যায় তাদেরকে আনুষ্ঠানিকভাবে এসব ঘরের কাগজপত্র দলিল নামজারী সহ ভূমিহীন পরিবারের প্রত্যেককেই ২ শতক জায়গার যাবতীয় ডকুমেন্ট ফোল্ডার আকারে হস্তান্তর করা হয়।

এরআগে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় নির্মিত এসব ঘর উদ্বোধন করার পরপরই উপজেলায় দশঘর ইউনিয়নে রায়খালী ও খাজাঞ্চি ইউনিয়নের বিলপাড় গ্রামে ১ম পর্যায়ে বাকি থাকা নির্মিত নান্দনিক ঘর ৬৫ পরিবারের হাতে জমির কাগজপত্র হস্তাস্তর করা হয়।

এ উপলক্ষে রোববার সকালে উপজেলা বিআরডিবি হলরুমে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও পৌর প্রশাসক সুমন চন্দ্র দাশের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম নুনু মিয়া।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভুমি) মো. কামরুজ্জামান, থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গাজী আতাউর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহমদ, সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. ছয়ফুল হক, দৌলতপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আমির আলী, খাজাঞ্চি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তালুকদার মো. গিয়াস উদ্দিন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. আব্দুস শহিদ হোসেন, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আব্দুর রহমান মুসা, লামাকাজি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কবির হোসেন ধলা মিয়া, রামপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ আলমগীর, অলংকারি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নাজমুল ইসলাম রুহেল, দেওকলস ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান খায়রুল আমিন আজাদ, উপজেলা প্রকৌশলী মো. আবু সাঈদ, পল্লিবিদ্যুতের ডিজিএম সাইফুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম সিরাজ, বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক নবীন সোহেল, সাংবাদিক কাজী জামাল উদ্দিন, এমদাদুর রহমান মিলাদ, নুর উদ্দিন, এসআই অরুপ রতন, যুবলীগ নেতা শাহ আলম খোকন, মুহিবুর রহমান সুইট, ডেফোডিল এসোসিয়েশনের সভাপতি এমদাদ হোসেন নাঈমসহ বিভিন্ন সরকারি কর্মকর্তা কর্মচারী বৃন্দ, সাংবাদিক ও উপহার গ্রহণকারী।


শেয়ার বোতাম এখানে





LoveYouZannath
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin