রবিবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২১, ০৫:১৫ পূর্বাহ্ন

বিদেশে পৌঁছানোর আগেই কাভার্ডভ্যান থেকে চুরি হতো পণ্য!

বিদেশে পৌঁছানোর আগেই কাভার্ডভ্যান থেকে চুরি হতো পণ্য!


শেয়ার বোতাম এখানে

নিজস্ব প্রতিবেদক :
গার্মেন্টসের রেডিমেড পণ্য বিদেশে রপ্তানির জন্য কার্টনে করে তা কাভার্ডভ্যানের মাধ্যমে পাঠানো হতো শিপমেন্টে। কিন্তু বিদেশে শিপমেন্টের আগেই পথিমধ্যে একটি চক্র কাভার্ডভ্যান থেকে কার্টন খুলে কিছু পণ্য চুরি করে সরিয়ে রাখত। এরপর রেডিমেড পণ্যগুলো বিদেশে রপ্তানির পরে ওই দেশের বায়ার তার অর্ডার করা মালামাল সঠিকভাবে বুঝে পেত না। ফলে রপ্তানি করা পণ্যের পেমেন্ট দিতে ও ভবিষ্যতে তাদের কাছে থেকে মালামাল নিতে অস্বীকৃতি জানায় বায়াররা।

এমন এক চোর চক্রের ৭ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে ডিএমপি’র গোয়েন্দা (সিরিয়াস ক্রাইম) বিভাগ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, মো. মঞ্জুরুল ইসলাম, মো. রাসেল ওরফে শাহজাহান, মো. মনির হোসেন, মো. খোরশেদুল আলম ওরফে মামুন, মো. নাজিম, মো. মধু শেখ ও মো. আ. করিম।

এ সময় তাদের কাছ থেকে মেসার্স লেনী অ্যাপারেলস লি. এর ২৫৯ কার্টনে থাকা ৩ হাজার ১০৮ পিস রেডিমেড গার্মেন্টস প্যান্ট ও একটি কাভার্ডভ্যান উদ্ধার করা হয়।

আজ দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান ডিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মো. আবদুল বাতেন।

তিনি জানান, গার্মেন্টসের রেডিমেড পণ্য চুরি হওয়াটা দেশের গার্মেন্টস শিল্পের জন্য চরম ক্ষতিকর। গতকাল রাজধানীর তুরাগ থানা এলাকায় কার্টন খুলে মালামাল চুরি করার সময় চোর চক্রের এই সদস্যদের গ্রেপ্তার করা হয়।


চোর চক্রের কার্যক্রম সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘গ্রেপ্তারকৃতরা একটি সংঘবদ্ধ চোরাই ও ছিনতাইকারী দলের সক্রিয় সদস্য। তারা পরিকল্পিতভাবে বাংলাদেশের গার্মেন্টসের মালামাল বিদেশে প্রেরণের সময় কার্টন খুলে প্রতিটি কার্টন থেকে কিছু মালামাল বের করে। এরপর অনুরুপভাবে কার্টন করে সাজিয়ে তা চট্টগ্রাম বন্দরে পৌঁছে দেয়। ফলে বিদেশে পৌঁছার পর আমদানিকারকরা কার্টন খোলার পর মালামাল কম পায়। যার পরিপ্রেক্ষিতে বিভিন্ন কোম্পানিকে জরিমানা প্রদানও করতে হয়। পরবর্তী সময়ে ওই আমদানিকারক বিদেশি কোম্পানি বাংলাদেশের গার্মেন্টস ব্যবসায়ীদের সঙ্গে ব্যবসা করার আগ্রহ হারিয়ে ফেলেন।’

আবদুল বাতেন বলেন, ‘গত কিছু দিন যাবৎ গামের্ন্টস রপ্তানি পণ্যের এরকম বেশ কয়েকটি ঘটনা সংঘটিত হয়েছে। আর এ সংক্রান্ত দেশের বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলাও দায়ের করা হয়েছে।’

তেমনি একটি মামলার বর্ণনা দিয়ে পুলিশ জানায়, গত ৩০ মে রাত ৩টায় মেসার্স লেনী অ্যাপারেলস লি. থেকে ২৫৯ কার্টন যার প্রতিটি কার্টনে ১২ (বার) পিস করে সর্বমোট ৩ হাজার ১০৮ পিস রেডিমেড গার্মেন্টস প্যান্ট, চালান কাস্টম ক্লিয়ারেন্স করে বুঝে নিয়ে চট্টগ্রাম বন্দরের উদ্দেশ্যে রওনা করে। কিন্তু ওই কাভার্ডভ্যানটি মালামালসহ চট্টগ্রাম বন্দরে না পৌঁছে নিখোঁজ হয়। এই ঘটনার তদন্ত করতে গিয়ে এই চোর চক্রের সাত সদস্য গ্রেপ্তার হয় ডিবি পুলিশের হাতে। তাদের বিরুদ্ধে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।


শেয়ার বোতাম এখানে

সমস্ত পুরানো খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১



themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin