শনিবার, ১৯ Jun ২০২১, ০৪:২২ অপরাহ্ন

বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সড়ক : প্রকৌশলীর সামনেই ঢালাইয়ে ব্যবহার হচ্ছে মাটি মিশ্রিত পাথর

বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সড়ক : প্রকৌশলীর সামনেই ঢালাইয়ে ব্যবহার হচ্ছে মাটি মিশ্রিত পাথর


শেয়ার বোতাম এখানে
  • 890
    Shares

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি:: সিলেটের বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সড়কের একটি অংশের আরসিসি ঢালাই কাজে উপজেলা প্রকৌশলীর সামনেই ব্যবহার করা হচ্ছে মাটি মিশ্রন মেশিনে ভাঙ্গা ছিপ-পাথর। পাথর না ধুয়ে সিমেন্ট মিশ্রন করে আরসিসি ঢালাই কাজ করা হচ্ছে। ওই অংশটি হচ্ছে পৌর শহরের লতিফ উল্লা মার্কেটের সামন হতে মস্তুরা পয়েন্ট পর্যন্ত ৫০০মিটার সড়ক।

মঙ্গলবার দুপুরে মাটি মিশ্রিত পাথর দিয়ে কাজ করা হচ্ছে স্থানীয়দের এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে সরেজমিন যান উপজেলার যুগান্তর প্রতিনিধি আশিক আলী। এসময় মোবাইলে কাজের ভিডিও ধারন করতে গেলে উপজেলা প্রকৌশলীর সামনে ওই সাংবাদিকের মোবাইল কেড়ে নেয়ার চেষ্ঠা করে ঠিকাদার।

জানা গেছে, গত ৩০এপ্রিল দুপুরে রহস্যজনক ভাবে জনবহুল ওই সড়কটি সম্পুর্ণরুপে যানবাহন বন্ধ করে মাত্র ৫০০মিটার সড়ক আরসিসি ঢালাই কাজ শুরু করে ঠিকাদার। সড়কটি প্রশস্ত আছে ২৪ফুট। চাইলে অর্ধে অংশ করে করে আরসিসি ঢালাই কাজ করতে পারতো ঠিকাদার। কিন্তু উপজেলা প্রকৌশলীর সাথে আতাত করে রহস্যজনকভাবে রাস্তাটি বন্ধ করে জনসাধারণের নজরের বাহিরে রেখে কাজ করা হচ্ছে। ফলে চলাচলের সময় জনসাধারন চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছেন। রমজান মাসে মাত্র এই অর্ধ কিলোমিটার সড়ক সংস্কারের জন্য অধিক গাড়ি ভাড়া দেয়া আর প্রায় আড়াই কিলোমিটার ঘুরতে হচ্ছে যাত্রীরা।
সাংবাদিকের ধারণকৃত ভিডিওতে দেখা যায়, মাটি মিশ্রিত ছিপ-পাথর দিয়ে কাজ চলছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে স্পটে থাকা উপজেলা প্রকৌশলী বলেন, এই ছিপ-পাথরে একটু ডাটস্ মিশ্রন থাকতেই পারে। আর এর পরই উপজেলা প্রকৌশলীর সামনেই সাংবাদিকের মোবাইল কেড়ে নেয়ার চেষ্ঠা করেন ঠিকাদার সুহেল আহমদ। এসময় সাংবাদিককে নিয়ে বাজে মন্তব্যও করেন ওই ঠিকাদার।

এবিষয়ের সত্যতা জানতে চাইলে উপজেলা প্রকৌশলী মো. আবু সাঈদ জানান, মোবাইল কেড়ে নেয়ার চেষ্ঠা করার বিষয়টি আমি দেখিনি। তবে, তাদের মধ্যে বাক-বিতন্ডা হয়েছে।


শেয়ার বোতাম এখানে
  • 890
    Shares

সমস্ত পুরানো খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০  



themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin