বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ০২:৫৫ পূর্বাহ্ন



শ্রীমঙ্গলে ইউপি সদস্যের রাস্তা দখল করে সেফটিক ট্যাঙ্ক : জন দুর্ভোগ

শ্রীমঙ্গলে ইউপি সদস্যের রাস্তা দখল করে সেফটিক ট্যাঙ্ক : জন দুর্ভোগ


আবুজার বাবলা, শ্রীমঙ্গল:
শ্রীমঙ্গলে রাস্তার উপর স্থাপনা নির্মান করে জন চলাচলে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি অভিযোগ পাওয়া গেছে এই ইউপি সদস্যর বিরুদ্ধে।

উপজেলার ভূনবীর ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. নিয়াজ ইকবাল মাসুদ দীর্ঘদিন যাবত উপজেলার মধ্যে লইয়ারকূল (পুরানগাওঁ) গ্রামের রাস্তার উপর বাড়ির বেড়া ও টয়লেটের সেফটিক ট্যাংক নির্মাণ করে সাধারণ মানুষের চলাচলে বিঘ্ন সৃষ্টি করে চলেছেন বলে গ্রামবাসী অভিযোগ করেছেন। এ অবস্থায় কয়েক গ্রামের সহস্রাধিক মানুষ এই রাস্তায় চলাচলে চরম দুর্ভোগে রয়েছেন।

জানা গেছে, উপজেলার ভূনবীর ইউনিয়নের লইয়ারকূল (পুরানগাওঁ) গ্রামের ওই মেঠো রাস্তাটিতে প্রতিদিন কয়েক হাজার মানুষ যাতায়াত করে থাকেন। উন্নয়নের অভাবে রাস্তার বেশীরভাগ অংশই ভাংগাচোরা। বর্ষা মৌসুমে রাস্তার বেশীরভাগ অংশই চলাচলে অনপযোগী থাকে। ফলে সাধারণ মানুষকে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়। গ্রামের মানুষ এই রাস্তা সংস্কারে দীর্ঘদিন ইউনিয়ন পরিষদে ধর্ণা দিয়ে রাস্তার কোন উন্নয়ন হয়নি।

উন্নয়নের বিষয়ে জানতে চাইলে গ্রামের বাসিন্দারা অভিযোগ করেন,গেল কয়েক বছর আগে এই রাস্তার উন্নয়নে সরকারী ভাবে কিছু ইট বিছানো হলেও ইউপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদ সেই ইট রাস্তা থেকে উঠিয়ে তার মালিকানাধিন স’মিলের কাজে লাগিয়েছেন। একইসাথে ওই ইউপি সদস্য তার বাড়ির বেড়া ও টয়লেটের সেফটিক ট্যাংক এর বর্ধিত অংশ রাস্তার উপরে বসিয়ে রাস্তা সংকুচিত করে ফেলেছেন। এছাড়া রাস্তার মধ্যে দিয়ে ডেইরি ফার্মের ময়লা পাশের জমিতে ফেলায় উৎকট দুর্গন্ধে চারদিকের পরিবেশ বিষাক্ত হয়ে উঠছে। এতে রাস্তা দিয়ে চলাচলকারী কমলমতি শিক্ষার্থীদের নাক- মুখ চেপে চলাচল করতে হচ্ছে।
দীর্ঘদিনেও কয়েকগ্রামের মানুষের একমাত্র চলাচলকারী রাস্তারটি উন্নয়ন না হওয়ায় একই গ্রামের কাতার প্রবাসী জনৈক হাজী সেলিম মিয়া গ্রামের মানুষের দুর্ভোগ নিরসনে এগিয়ে আসেন।

গ্রামের দুলাল মিয়া বলেন, কাতার প্রবাসী হাজী সেলিম মিয়া সামজিক দায়বদ্ধতা থেকে গত কয়েক বছরে নিজ উদ্যোগে রাস্তা সংস্কারে চল্লিশ লাখ টাকা খরচ করেন । কিন্তু প্রায় দেড় কিলোমিটার রাস্তার মধ্যে ইউপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদ এর বাড়ির অংশসহ বেশ কিছু রাস্তা সেফটিক ট্যাংক ও রাস্তার জায়গা দখল করে বেড়া দেয়ায় সেই অংশগুলিতে সংস্কার করতে পারছেন না।

গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুস ছত্তার বলেন, সরকারী ভাবে রাস্তাটি উন্নয়ন না হওয়ায় একজন প্রবাসী নিজের অর্থে রাস্তা সংস্কার করার উদ্যোগ নিলেও বর্তমান ইউপি সদস্য এতে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন। তিনি বলেন, গত মার্চ মাসে ২২ তারিখে গ্রামের লোকজন ইউপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করে রাস্তা থেকে সেফটিক ট্যাংক অপসারনে শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর হস্তক্ষেপ চেয়েছেন।

এদিকে, গত ৫ মে শ্রীমঙ্গল থেকে কয়েকজন সংবাদকর্মী সরেজমিন ঘটনাস্থল পরিদর্শনে গেলে গ্রামের নারী পুরুষ, ছাত্র ও যুবকরা ইউপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদ কর্তৃক রাস্তা দখল করে টয়লেটের সেফটি ট্যাংক দেখিয়ে বক্তব্য দেন। সংবাদকর্মীরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করার পর ইউপি সদস্য ক্ষিপ্ত হয়ে মোবাইল ফোনে দুলাল নামে এক যুবককে প্রাণ নাশের হুমকি দেয়।

দুলাল মিয়া বলেন, ‘মেম্বার নিয়াজ ইকবাল মাসুদ তার এক নিকট আত্বীয়ের মোবাইল ফোনে ‘বেশী বাড়াবাড়ি করলে দা দিয়ে আমাকে ছেদিয়ে হত্যা করবে’ মর্মে হুমকি দেয়। এ ঘটনায় দুলাল মিয়া ই্উপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদ এর বিরুদ্ধে মঙ্গলবার রাতে শ্রীমঙ্গল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এবিষয়ে জানতে চাইলে ইউপি সদস্য নিয়াজ ইকবাল মাসুদ বলেন, আগামী শুষ্ক মৌসুমে এই রাস্তা উন্নয়নের কাজ শুরু করার কথা রয়েছে। তিনি বলেন ‘এলাকার কিছু স্বার্থন্বেষী মহল তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে’। রাস্তা দখল করে টয়লেটের ট্যাংক নির্মান ও বেড়া দেয়ার কথা স্বীকার করে তিনি বলেন ‘এরকম আরো অনেকে রাস্তার জায়গায় ঘর তুলে রেখেছেন’। সবাই সরালে তিনিও তার স্থাপনা সরিয়ে নেবেন বলে জানান। এছাড়া রাস্তার ইট সরিয়ে নেয়ার অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন ‘এই ইট তার নিজের কেনা, সরকারী নয়’। তিনি রাস্তা সংস্কারে কাতার প্রবাসী হাজী সেলিমের উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বলেন,’হাজী সেলিম আমার প্রতিবেশী ভাই। তার সাথে আমার সবসময় যোগাযোগ আছে। তিনি নিজ উদ্যোগে জনহৈতিকর কোন কাজ করলে আমি বাধা দিতে যাবো কেন’ বলে জানান তিনি।


সমস্ত পুরানো খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  



themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin