সোমবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২১, ০৮:১৫ অপরাহ্ন

সিলেট থেকে মন্ত্রী হতে পারেন

সিলেট থেকে মন্ত্রী হতে পারেন


শেয়ার বোতাম এখানে

নবীন সোহেল
সকল সরকারের মন্ত্রণালয়ের আধিপত্য থাকে পূন্যভুমি সিলেটের সাংসদের। একাদশ সংসদেও হয়তো এর বিকল্প হচ্ছে না। সাবেক মন্ত্রীরাই ফের দায়িত্বে থাকতে পারেন। আবার ছিটকে যেতে পারেন দু’একজন। এবার নতুন মন্ত্রী হওয়ার দৌড়েও আলোচনায় রয়েছেন সিলেটের কয়েকজন নতুন সাংসদ। আবার এক পরিবারে আসতে পারে দুই মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব এমন গুঞ্জন এখন সিলেটের সকল মানুষের মুখে মুখে।
সিলেট থেকে দশম সংসদে অর্থমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন সিলেট-১ আসনের সাংসদ আবুল মাল আব্দুল মুহিত, শিক্ষামন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন সিলেট-৬ আসনের সাংসদ নুরুল ইসলাম নাহিদ ও অর্থ প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন সুনামগঞ্জ-৩ আসনের সাংসদ এম.এ মান্নান। এদের মধ্যে ফের অর্থমন্ত্রী দায়িত্ব গ্রহণের সম্মতি জানিয়েছেন আবুল মাল আব্দুল মুহিত। ঝরে পড়ার আশংকায় রয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। আর দায়িত্বে বহাল থাকতে পারেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম.এ মান্নান।
এদিকে, মন্ত্রী হওয়ার দৌড়ে সবার থেকে এগিয়ে সর্বমহলে আলোচনায় রয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিতের সহোদর সিলেট-১ আসনের নব-নির্বাচিত সংসদ সদস্য ড. একে আব্দুল মোমেন। আলোচনায় আছে মোমেন পেতে পারেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব। আর টেকনোক্র্যাট মন্ত্রী হওয়ার আলোচনায় রয়েছেন হবিগঞ্জের ড. ফরাস উদ্দিন আহমদ। আরো মন্ত্রী হওয়ার সম্ভবনায় রয়েছেন মৌলভীবাজার-৪ আসনের সাংসদ ড. আব্দুস শহীদ। তাঁকে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়ার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঝড় উঠেছে। প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পেতে পারেন, মৌলভীবাজার-১ আসনের সাংসদ শাহাব উদ্দিন ও সিলেট-৫ আসনের সাংসদ হাফিজ আহমদ মজুমদার এমন আলোচনাও এখন সর্বমহলে রয়েছে।
অপরদিকে, প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ পুরুষ্কারে প্রতিমন্ত্রী, হুইপ, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্ঠা বা অন্য কোন দায়িত্ব পাওয়ার সম্ভবনায় আলোচনায় রয়েছেন, সদ্য বিএনপি থেকে আওয়ামী লীগে যোগ দেয়া ড. ইনাম আহমদ চৌধুরী, বিকল্পধারার নেতা শমশের মুবিন চৌধুরী ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ। আবার দলের নিবেদিত কর্মি হিসেবে বিশেষ পুরুষ্কার হিসেবে চিপ হুইপ বা প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্ঠা অথবা অন্য কোন দায়িত্ব পেতে পারেন মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন কামরান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব শফিকুর রহমান চৌধুরী ও কানাডা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সরওয়ার হোসেন এমনটাই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষকরা। সাংসদ ও নেতাদের সমর্থরাকরা মন্ত্রী চাই এমন প্রচারে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও মাতম উঠেছে।
আগামী ৩ জানুয়ারী শপথ গ্রহণ ও ৬ জানুয়ারী মন্ত্রী পরিষদ গঠন করতে যাচ্ছে একাদশ সংসদ নির্বাচনে নিরুঙ্কুশ বিজয়ী দল ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। তাই সকল সাংসদরাই বর্তমানে ঢাকায় অবস্থান করছেন। পূণ্যভুমি সিলেট থেকে মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে কারা আসছেন এমন প্রতিক্ষা করতে ৬জানুয়ারী পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে সিলেটবাসীর।


শেয়ার বোতাম এখানে

সমস্ত পুরানো খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১



themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin