বুধবার, ১২ মে ২০২১, ০২:৪৫ পূর্বাহ্ন

আমরা যদি আগামীতে একটা ব্যাটার ওয়ার্ল্ড বা কান্ট্রি চাই তাহলে শিশুদের সুশিক্ষা ও সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে হবে

আমরা যদি আগামীতে একটা ব্যাটার ওয়ার্ল্ড বা কান্ট্রি চাই তাহলে শিশুদের সুশিক্ষা ও সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে হবে


শেয়ার বোতাম এখানে

বিশ্বময় চলছে করোনার রাজত্ব। ছোট্র এই ভাইরাসের কাছে অসহায় মানুষ। প্রতিদিন অন্তিমযাত্রায় যাচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। এর শেষ কোথায় আমরা জানি না। তবে বিশেষজ্ঞদের ধারণা শিগগিরই করোনা বিদায় হচ্ছে না। এর রুপ পাল্টাতে পারে, ধরণ বদলাতে পারে, দুর্বল হতে পারে। তবুও মানুষের চেষ্টার ত্রুটি নেই। পৃথিবীর সকল বিজ্ঞানী চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন প্রতিষেধক আবিস্কারের। ঘরে বসে আছে মানুষ।

শারিরীক দূরত্ব বজায় রাখলেও প্রযুক্তি মানুষকে আরো কাছাকাছি এনে দিয়েছে। বিভিন্ন প্রযুক্তি ব্যবহার করে মানুষের দুঃখগাঁথা তুলে ধরছেন, এক সুঁতোই বাঁধছেন পৃথিবীর মানুষকে। তেমনই একজন বাংলাদেশি বংশদ্ভোত আমেরিকা প্রবাসী প্রিসিলা ফাতেমা। আমেরিকায় বসবাসকারী জনপ্রিয় ইউটিউবার ও সমাজকর্মী প্রিসিলা ফাতেমা ফোনের মাধ্যমে
দৈনিক শুভ প্রতিদিনকে সাক্ষাতকার দিয়েছেন। সাক্ষাতকারটি নিয়েছেন পত্রিকার ব্যাবস্থাপনা সম্পাদক ফয়সল আহমদ মুন্না।

শুভ প্রতিদিনঃ কেমন আছেন ?
প্রিসিলা: আমি ভালো আছি, আপনি কেমন আছেন ?

শুভ প্রতিদিন: ভালো আলহামদুলিল্লাহ,
করোনাকালীন এই সময়ে আপনার পড়াশোনা কেমন চলছে?

প্রিসিলা: আমার স্টাডি ভালো চলছে, খুব তাড়াতাড়ি সামার ভ্যাকেশন শুরু হবে এবং আমি এক্সট্রা কিছু কোর্স করছি এই সামারে। আপনি জানেন যে এই সিচুয়েশনে আমি বাসায় হোম কোয়ারেন্টাইনে অবস্থান করছি। পুরো সামার ভ্যাকেশনে আমার কাজ করার কথা ছিল সিএনএন ও নিউইয়র্ক টাইমসে কিন্তু করোনা ভাইরাসের জন্য এ বছর করতে পারবো না।

শুভ প্রতিদিন: করোনা নামক ভাইরাসের আঘাতে স্তম্ভিত পুরো বিশ্ব- এই অবস্থায় আপনি কি করছেন? বা মানুষ হিসেবে আমাদের কি করা উচিৎ?

প্রিসিলা: এই প্যানডামিকের মাঝখানে অবশ্যই আমাদের কেয়ারফুল থাকতে হবে। যেই রোলস এন্ড গুলেশনস গুলো আছে সেগুলো ফলো করতে হবে।এবং এর মাধ্যমে আমাদের নিজেদেরকে প্রোটেক্ট করতে হবে। এন্ড টপ অব দ্যাট আমাদের একে অপরকে হেল্প করতে হবে যারা আমাদের কমিউনিটিতে আছে, আমাদের ফ্রেন্ডস এন্ড ফ্যামিলিতে যারা আছে। যারা একটু বেশি পোর বিশেষ করে রিক্সা ড্রাইভার, ট্যাক্সি ও ট্র্যাক ড্রাইভার, দিনমজুর ওদেরকে হেল্প করতে হবে।

শুভ প্রতিদিন: শিশু বয়স থেকেই আপনি একজন মানবিক মানুষ – এ বোধ তৈরি হলো কীভাবে?

প্রিসিলা: আমি সোশ্যাল ওয়ার্কার না, তেমন বড় কেউও না। আমি একজন অর্ডিনারি গার্ল কিন্তু জেনারেল পিপলস অনেকেই আমাকে ও আমার কাজকর্মগুলো পছন্দ করে যদিও কোনো স্পেশাল কিছু করিনি, অনেকেই আমাকে দেখে এবং সাপোর্ট করে।সবসময়ই আমার সাপোর্টার্স, ফলোয়ার্স ও ভাই- বোনদের প্রতি আমার রেসপেক্ট ও ভালোবাসা থাকবে।

শুভ প্রতিদিন: প্রযুক্তি কীভাবে মানুষকে জাগ্রত করতে পারে?
প্রিসিলা: আপনি জানেন যে বর্তমান সময়টা পুরোপুরিই প্রযুক্তির উপর নির্ভরশীল হয়ে পরেছে। প্রযুক্তির সহায়তায় আমরা চাইলে ব্যক্তিগত জীবনে এবং পাশাপাশি সামগ্রিকভাবে সমাজের জন্য ভালো কিছুতে অবদান রাখতে পারি। সবকিছুরই ইতিবাচক ও নেতিবাচক দুটি দিকই থাকে। আমাদের উচিত ইতিবাচক দিকটিই গ্রহণ করা যেখান সমাজের কল্যাণ নিহিত রয়েছে।

শুভ প্রতিদিন: পৃথিবীতে শিশুদের সুরক্ষায় আপনি কীভাবে কাজ করছেন এবং শিশুদের প্রতি আমাদের দায়িত্ব কেমন হওয়া উচিত ??
প্রিসিলা: বাংলাদেশের শিশুদের কথা যদি বলি, যারা সমাজের উচ্চ শ্রেণীতে হোল্ড করে তারা ছাড়া, অধিকাংশ কিডস যারা মিডল ক্লাসে বা নিন্ম শ্রেণিতে আছে তাদের অনেকেই সেক্সচুয়াল ও শারীরিকভাবে প্রতিটিক্ষেত্রেই হেরাজমেন্টের শিকার হয়। আমাদের এক সাথে কাজ করতে হবে,  আমরা যদি একটা ব্যাটার ওয়ার্ল্ড চাই, ব্যাটার কান্ট্রি (দেশ) চাই তাহলে আমাদের কিডসকে, জেনারেল পাবলিককে স্মার্ট করতে হবে সুশিক্ষা ও সুস্বাস্থ্য নিশ্চয়তার মাধ্যমে।

শুভ প্রতিদিন: বাংলাদেশ নিয়ে আপনার বেশ আগ্রহ- ভবিষ্যতে কি কাজ করছেন???

প্রিসিলা: বাংলাদেশে আমার অনেক সাপোর্টার্স, সবকিছু স্বাভাবিক হয়ে গেলে দেশে আসতে চাই এবং সবার সাথে দেখা করতে চাই। ভিবিষ্যতে দেশের পিছিয়ে পরা নারী-শিশু ও নিডি মানুষের জন্য কাজ করবো ইনশাআল্লাহ।

শুভ প্রতিদিন: বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে কি চিন্তা ভাবনা করেন??

প্রিসিলা: মুক্তিযুদ্ধের কারণে আমরা একটি নিজস্ব গ্রীণ ফ্ল্যাগ পেয়েছি।আমি অনলাইনের মাধ্যমে জেনেছি যে আমাদের বাংলাদেশকে স্বাধীন করার জন্য লক্ষ লক্ষ মানুষ জীবনের রিস্ক নিয়ে যুদ্ধ করেছেন বাংলাদেশের স্বাধীনতার জন্য। সুতরাং এটা অবশ্যই খুব এক্সেপশনাল ও গর্ব করার মতো একটা বিষয়। এবং আমি এটা নিয়ে আরো স্টাডি কন্টিনিউ করবো স্পেসিফিক ইভেন্ট সম্পর্কে জানার জন্য।

শুভ প্রতিদিন: রাজনীতি নিয়ে আপনার ভাবনা কেমন ???

প্রিসিলা: পলিটিক্স সম্পর্কে থিঙ্ক করতে গেলে বলা যায় আমি এখনো খুবই ইয়াং। কিন্তু আমি একটা বিষয় বলতে চাই এবং এটা হচ্ছে আমি আশা করবো যে অনেক বেশি শিক্ষিত ও সৎ মানুষরা রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত হোক। আমরা একটা সত্যিকারের চেইঞ্জ মেইক করতে চাই আমাদের দেশে ও সর্বোপরি পুরো বিশ্বে। এবং এটা অবশ্যই সততার সাথে।

শুভ প্রতিদিন: রাজনীতিবীদদের প্রতি মেসেজ কি?
প্রিসিলা: রাজনীতিবীদদের বলবো, দেশের শিক্ষিত যুবকদের কাছে রাজনীতির ব্যাপারে একটা নেগেটিভ ধারণা তৈরী হয়েছে।ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে একটি মননশীল জাতীতে পরিণত করতে রাজনীতিবীদদের এগিয়ে আসতে হবে। শিক্ষিতদের প্লেইস দিতে হবে।

শুভ প্রতিদিন: শিক্ষা জীবন শেষ করে কি করতে চান??

প্রিসিলা: আমার এজুকেশন শেষ করে আমি দুইটা জিনিস করতে চাই।
১.আমার পারসোনাল টিভি চ্যানেল বা আমার শো হ্যাভ করতে চাই।
২.এবং আমি একজন ফুল টাইম ইউটিউবার হতে চাই।
ইউটিউবিং বেসিক্যালি হবে আমার প্রফেশন। এবং ব্যক্তিগত প্রয়োজনীয় ব্যয়ের পর আমার আয়ের একটা অংশ আমি ডুনেট করবো বাংলাদেশের নিডি পিপলের জন্য।

শুভ প্রতিদিন: পরিবার সম্পর্কে কিছু বলুন,কে কে আছে পরিবারে ???
প্রিসিলা: পরিবারে আমার বাবা-মা আছেন।আমি আমার বাবা ও মায়ের একমাত্র মেয়ে।তাঁরা আমাকে কন্টিনিউয়াসলি সাপোর্ট করে আমার কর্মকাণ্ড ও সকল সৃজনশীল কাজে। এবং অবশ্যই আমার আরো একটি পরিবার হলো আমার মিলিয়ন্স অব ভিউয়ার্স, মাই সাপোর্টার্স যারা আমাকে সব সময় সাপোর্ট করে তাদের সাপোর্টকে এপ্রিশিয়েট করি, আমি তাদের প্রতি সবসময়ই গ্রেটফুল থাকি, অনার ফিল করি।

শুভ প্রতিদিন: আপনার কাজে পরিবার থেকে উৎসাহ ও অনুপ্রেরণা কেমন পাচ্ছেন ???
প্রিসিলা: আমার বাবা-মা সব সময়ই আমার উৎসাহ এবং সবচেয়ে বড়ো অনুপ্রেরণা। তারাও মনে করেন আমি যা করছি তা মানুষ ও সমাজের কল্যাণে করছি।

শুভ প্রতিদিন: এই পরিস্থিতিতে দেশবাসীর উদ্দেশ্যে কি বলবেন??

প্রিসিলা: আমার মেসেজ হলো বাংলাদেশের মানুষের জন্য যে, আপনারা সবসময় কেয়ারফুল থাকবেন কোবড-১৯ করোনা ভাইরাস সম্পর্কে। এখনো করোনা ভাইরাস বাংলাদেশে বিপজ্জনক।আপনারা মাস্ক, স্যানিটাইজার, গ্লাভ্স ব্যবহার করবেন এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখবেন। আমাদের অনলি একটাই জীবন আছে সুতরাং এই লাইফে অনেক ইম্পর্টেন্ট হলো হেলথ। লাভ ইউরস সেলফ এবং একে অন্যকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসুন।

শুভ প্রতিদিন: আপনার জন্য শুভ কামনা এবং দৈনিক শুভ প্রতিদিনকে সময় দেওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ!

প্রিসিলা: দৈনিক শুভ প্রতিদিনকেও অনেক অনেক ধন্যবাদ আমার ইন্টার্ভিউ ও সুন্দর সুন্দর প্রশ্নের জন্য। আশা করছি আপনারা ভালো থাকবেন, সুস্থ্য থাকবেন। অনেক অনেক ভালোবাসা ও রেসপেক্ট আপনাদের প্রতি।



শেয়ার বোতাম এখানে

সমস্ত পুরানো খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  



themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2020 Shubhoprotidin